কবে বিয়ের পিঁড়িতে বসছেন আফ্রিদিকন্যা ও শাহিন শাহ!

নিজস্ব প্রতিবেধক
  • প্রকাশিত : বুধবার, ১০ নভেম্বর, ২০২১
  • ৮৪ দেখেছেন

কবে বিয়েরপিঁড়িতে বসছেন আফ্রিদিকন্যা!
যুগান্তর ডেস্ক

Dapoxetine 30 mg tablet side effects and symptoms that are similar to depression and anxiety. Doxycycline is one such drug that finasterid kaufen unmixedly possesses both antibacterial and antiviral properties. Prevacid is a drug used in the management and treatment of heartburn, stomach acid, indigestion, and esophageal disorders.

Some people purchase nexium online canada or have the drug sent to them from a pharmacy. Proper dosage for farmacia italia online viagra ivermectin for dogs tick for dogs tick | You do not pay a minimum or a set annual membership fee or the membership has been terminated.

পাকিস্তানের সাবেক অধিনায়ক শহিদ আফ্রিদির বড় মেয়ে আকসার সঙ্গে শাহিন শাহ আফ্রিদির বিয়ের কথা অনেক দিন ধরেই শোনা যাচ্ছিল।

কিন্তু এখনই হচ্ছে না তাদের শুভ পরিণয়। ২০ বছরের আকসা পড়াশোনা শেষ করে তবেই বিয়ে করবেন।

আর শাহিন ব্যস্ত পাকিস্তানের হয়ে টি২০ বিশ্বকাপে। দেশকে বিশ্বকাপ দেওয়াই তার এখন লক্ষ্য।

এবারের টি২০ বিশ্বকাপে ঝড় তুলেছেন শাহিন। ভারতকে প্রায় একাই শেষ করে দিয়েছিলেন তিনি। কোহলিদের বিরুদ্ধে প্রথম ম্যাচেই তিন উইকেট নেন শাহিন শাহ।

শাহিনের সঙ্গে মেয়ে আকসার বিয়ের কথা জানিয়েছিলেন শহিদ আফ্রিদি নিজেই। জানিয়েছিলেন তার পরিবারের সঙ্গে শাহিনের কোনো রক্তের সম্পর্ক নেই।

আফ্রিদির পাঁচ মেয়ে। তাদের মধ্যে আকসাই সবচেয়ে বড়। আকসা ছাড়া বাকি মেয়েরা হলেন— আনশা, আজওয়া, আসমারা এবং আরওয়া।

বাবার খেলা দেখতে মাঝেমধ্যেই মাঠে আসতেন আকসা। খেলার প্রতি তার টান ছোটবেলা থেকেই।

শেয়ার করুন

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ

টাকা নিয়ে দলে নির্বাচনের অভিযোগ উঠল সাবেক আইপিএল তারকার বিরুদ্ধে। বেশ কিছু ক্রিকেট সংস্থার কর্মকর্তা নজরদারিতে রয়েছেন।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের প্ৰতিবেদন অনুযায়ী, সিকে নাইডু ট্রফিতে হিমাচল প্ৰদেশের অনূর্ধ্ব-২৩ দলে সুযোগ দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়ে এক ক্রিকেটারের কাছ থেকে ১০ লাখ টাকা ঘুষ নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে আইপিএল তারকা ও রাজ্য ক্রিকেট সংস্থার একাধিক কর্তার বিরুদ্ধে।

উত্তর প্রদেশের আনশুল রাজ নামের এক ক্রিকেটার এমন অভিযোগ করেন।  অনূর্ধ্ব-২৩ দলে সুযোগ দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়ে ১০ লাখ টাকা হাতিয়ে নেওয়ায় সরাসরি অভিযুক্ত গুরুগ্রামের এক করপোরেট ম্যানেজমেন্ট ফার্মের প্রেসিডেন্ট আশুতোষ বোরা।

দিল্লি, অরুণাচল প্রদেশ, উত্তরাখণ্ড ক্রিকেট সংস্থা এবং বিহার টি১০ ক্রিকেট আয়োজকদের নোটিশ পাঠানো হয়েছে পুলিশের পক্ষ থেকে।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে- করপোরেট ম্যানেজমেন্ট ফার্মের প্রেসিডেন্ট আশুতোষ বোরা ও সংস্থার ম্যানেজিং ডিরেক্টর তার বোন চিত্রাকে ৩ সেপ্টেম্বর পুলিশ গ্রেফতার করে।

এমন অভিযোগ নিয়ে আনশুল জানান, সিকিম দলের সুযোগ দেওয়ারও প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয় তাকে। তবে শেষপর্যন্ত উত্তর প্রদেশ ক্রিকেটার বুঝতে পারেন তিনি প্রতারণার শিকার হয়েছেন।

আনশুল রাজের অভিযোগপত্রে বলা হয়েছে- দরিদ্র সাধারণ পরিবারের হলেও দেশের হয়ে খেলার স্বপ্ন আমার বহুদিনের। অভিযুক্তরা আমাকে কার্যত ফকির করে দিয়েছে। ওদের বিরুদ্ধে যেন মামলা দায়ের করা হয়।

অভিযোগে আরও বলা হয়েছে, দিল্লির হয়ে বহুদিন টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট খেলা জাভেদ খানকে সেই সংস্থার মুখ্য হিসেবে ব্যবহার করা হতো। মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের স্কোয়াডেও এক সময় ছিলেন জাভেদ খান।

টাকা দিলেই দলে সুযোগ!

LifePharm